Others

ফাতেমা ইভার প্রিয় বিড়াল মিনি

আপনাকে জানাই আন্তরিক অভিনন্দন ফাতেমা ইভার প্রিয় বিড়াল মিনি সম্পর্কে পড়েতে আসায় । ফাতেমা ইভার কথ্য অবলম্বনে নির্মিত। –

আমার একটা বিড়াল আছে। তার নাম মিনি। সে খুব সুন্দর। তার গায়ের রং সাদা, বিড়ালটাকে যেদিন প্রথম নিয়ে এসেছিলাম ঐ দিনই আমি ওর মায়ায় পড়ে গিয়েছি। অবশ্য ওর ও আমাকে পছন্দ হয়েছে।

আম্মু কে যখন বলেছিলাম আমি বিড়াল পালবো। আম্মুর উত্তর ছিলো বিড়ালের সাথে আমাকেও বাসা থেকে বের করে দিবে 🤣😂।আমি অনেক কষ্টে আম্মু কে  রাজি করালাম। তারপর যখন মিনিকে বাসায় নিয়ে আসলাম, তখন আম্মু বলল এটতো অনেক সুন্দর কিউট বিড়াল।এরপর থকে আম্মুও মিনি কে আদর করে।আমি যখন সকালে ঘুম থেকে দেরি করে উঠি তখন আম্মু ও কে খাবার দিয়ে দেয়।

সবচেয়ে মজার কথা হচ্ছে আমার বিল্লু বারগার 😞,পিজ্জা 😔, কিটকাট 😟,ফুসকা 😕 সব খায় 😃।

আমার থেকেও আম্মু বেশী যত্ন করে ওর। ভাইয়া যখন ছুটিতে বাসায় আসে মিনি সারাক্ষণ ভাইয়ার সাথে থাকে। মিনির দুষ্টামি আর আদুরি মুখ দেখে সবাই ভালোবাসে।

কয়েকদিন আগে ওকে ভেট এর কাছে নিয়ে গিয়েছিলাম, ওইখানে আঙ্কেলটা ও মিনি কে কোলে নিয়ে আদর করেছে । মিনি এখন আমাদের  পরিবারের একজন সদস্য। বিশ্বাস করেন মানুষ থেকে প্রানীরা শত গুনে ভাল 😒। বিড়াল আমার আবেগ। আমি খুব শখ করে আর ভালোবেসে বিড়াল লালন করি।

আপনি বিড়াল পছন্দ করেন তো ?

আমাদের কে যিনি সৃষ্টি করেছেন ওদেরকে ও তিনিই সৃষ্টি করেছেন। ভালোবাসতে না পারলে,মায়া না জন্মালে সমস্যা নেই  কিন্তু নির্দয়/হিংস্র হবেন না🙏বিড়াল এর গায়ে কখনো পা দিয়ে লাথি কিংবা লাঠি দ্বারা আঘাত করবেন না। এমন কি পা লাগিয়ে আদর ও করবেন না । 

মনে রাখবেন, বিড়াল একমাত্র মাংসাসী প্রাণি যাকে আমাদের নবী (সা:), ভালবেসে তার গায়ে হাত বুলিয়েছিলেন, কোলে বসিয়েছেন। বিড়াল সেই প্রাণি যে পবিত্র কাবার গিলাফে গা লাগিয়ে ঘুমায়, বিড়াল সেই প্রাণি, যার জন্য মক্কায় মুসল্লিগণ  কাতার ভেঙে দাঁড়ায়!, তাও তাকে কেউ স্থান থেকে উঠায় না! বিড়াল সেই প্রাণি, যাকে পানি পান করানোর জন্য মক্কায় আলাদা লোক নিয়োগ দেয়া হয়, যার মুখ লাগানো এটো খাদ্য মা আয়েশা মুখে নিয়েছেন এবং যার জিহবা দ্বারা চাটা পানিতে আল্লাহর হাবীব নবী কারিম (সাঃ) ওযু করেছেন। 

আল্লাহ আমাদেরকে পশু পাখিদের প্রতি সহনশীল হওয়ার তৌফিক দান করুক। আমিন। 

ফাতেমা ইভার প্রিয় বিড়াল মিনি সম্পর্কে পড়ে আপনার কেমন লাগলো কমেন্ট বক্সে জানিয়ে যাবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button